ডেস্ক রিপোর্ট

হ্যাকিং রোধে ফেসবুকের নতুন করনীয়

Spread the love

আঞ্জুমান আরা, সদর প্রতিনিধি:

ফেসবুকে কে কত জনপ্রিয় সেটা বোঝা যায় তাদের পোস্টের লাইক, রিয়েক্ট ও কমেন্ট দেখে। কিন্তু এখানে থেকে যাচ্ছে কিছু সিকিউরিটি ও প্রাইভেসি ইস্যু। এ সিকিউরিটি ও প্রাইভেসির ব্যাপারে চিন্তা করে অনেকেই চান না নিজেদের পোস্টের লাইক ও রিয়েক্ট অন্য কেউ বা অপরিচিত কেউ দেখুক।

 

ফেসবুক এ ইউজার প্রাইভেসির কথা মাথায় নিয়ে এসেছে নতুন একটি ফিচার, যার নাম-রিয়েকশন প্রেফারেন্সেস। ইউজার প্রাইভেসি নিয়ে জেআর টেকনোলজির ডিরেক্টর জেনিফার আলম জানান, ফেসবুকের এ অপশনটি অনেক গুরুত্বপূর্ণ; বিশেষ করে মেয়েদের জন্য।

 

সাধারণত ইউজারদের খুব কাছের মানুষই তাদের প্রায় পোস্টে লাভ ও বিভিন্ন পোস্ট অনুযায়ী রিয়েকশন দিয়ে থাকে। সুতরাং সে ক্ষেত্রে কিন্তু কোনো হ্যাকার বা কোনো দুষ্কৃতিকারী যদি তাদের ফলো করে তারা খুব সহজেই বুঝে যাবে, তার ভিকটিমের কাছের লোক কারা, ভিকটিম কাদের সঙ্গে সবচেয়ে বেশি মেলামেশা করে। এ ফিচারটির মাধ্যমে ভিকটিম অনেকাংশেই ফিশিং ও আইডি হ্যাক থেকে কিছুটা হলেও নিরাপদ থাকতে পারবে।

 

যারা এ ফিচারটি ব্যবহার করতে চান তারা মোবাইল থেকে ফেসবুক অ্যাপটি ওপেন করে সরাসরি সেটিংস অপশনে চলে যাবেন, তারপর স্ক্রল করে সেটিংস অপশনের একদম নিচেই দেখতে পাবেন ‘Reaction Preferences’ নামে একটি অপশন আছে; সেখানে ক্লিক করলেই আপনার পোস্টে কে কে লাইক রিয়েক্ট দিয়েছে তা হাইড করতে পারবেন।

 

 

তাই ফেসবুকের এমন নতুনত্বকে সাধুবাদ জানানো যায় এবং যারা প্রাইভেসি মেইনটেইন করে থাকতে চান, তাদের উৎসাহিত করবে ফেসবুকের এ ফিচারটি ব্যবহার করতে।

 

আর যারা ফেসবুকের ওয়েবসাইট থেকে যারা করতে চান তারা প্রথমে ‘Settings and Privacy’তে যাবেন এরপর ‘News Feed Preferences’ এ গিয়ে ‘Reaction preferences’ আপনি আপনার পছন্দমতো অপশন সিলেক্ট করতে পারবেন।

 

এ বিষয়ে আইটি ও সিকিউরিটি অ্যানালিস্ট রাইয়ান মালিক বলেন, যারা প্রাইভেসির কথা মাথায় রেখে ফেসবুক ইউজ করছে, তাদের জন্য এ সেটিংস খুবই গুরুত্বপূর্ণ। টার্গেটেড আইডি হ্যাক করার জন্য ও ফেসবুক অ্যাকাউন্টের কিছু সিকিউরিটি সার্ভিস ভাঙতে তাদের প্রয়োজন হয় ভিকটিমের কাছের মানুষের আইডি খুঁজে বের করা।

 

এক্ষেত্রে ভিকটিমের লাইক-রিয়েকশন অফ করা থাকলে ভিকটিমের পরিচিত আইডি খুঁজে বের করা কিছুটা কষ্টসাধ্য। প্রাইভেসি ও সিকিউরিটির কথা চিন্তা করলে বলাই যায়, এ সার্ভিসটি নিয়ে আসা ফেসবুকের খুব ভালো একটি উদ্যোগ ।

 

পাশাপাশি যদি ফিশিং অ্যাটাকের কথা বলি, তাহলে সেখানেও হ্যাকাররা আপনার আইডি বা ফোন হ্যাক করার জন্য আপনার কাছের বা পরিচিত মানুষের আইডি হ্যাক করে বা ক্লোন আপনাকে ম্যালিসিয়াস লিংক পাঠাতে পারে। কারণ অনেক সময় হ্যাকারদের অপরিচিত অ্যাকাউন্ট থেকে পাঠানো লিংকে ভিকটিম ক্লিক করে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
WAYS TO GET RID OF ALLERGIES WAYS TO STOP HAIR LOSS Eid SMS Greeting Poems EID Greetings Message Love SMS AIDS 2026 Football World Cup Airport Personal Injury Lawyers